Saturday, February 16, 2019
সর্বশেষ সংবাদ
ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিল হবে না: আইনমন্ত্রী         বিরোধীদের নির্মূলে সরকার মরিয়া: মির্জা আলমগীর         পুনঃনির্বাচনের দাবিতে আন্দোলনে নামছে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট ও বাম জোট         বন্দিদের সঙ্গে সাক্ষাৎ ৩ দিন বন্ধ থাকবে         কোম্পানীগঞ্জে গর্তে পড়ে আবারো এক শ্রমিক নিহত         সিসিকের বকেয়া বিল আদায় অভিযান অব্যাহত, ৭ দিনে ৩৩ লাখ টাকা আদায়         ছড়া-খাল দখলকারীরা যত বড় প্রভাবশালী হোক, তাদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা-সিসিক মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী         নগরীতে ‘বৈকালিক সম্প্রসারিত টিকাদান কর্মসূচির উদ্বোধন’ টিকাদান কর্মসূচিতে বিশ্বে বাংলাদেশ এখন রোল মডেল—সিসিকের প্রধান নির্বাহী         চার দেশে আশ্রয় চাইলেন আলোচিত সৌদি যুবতী কুনুন         ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২: স্থগিত ৩ কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ চলছে        

এসএসসির ফল পুন:নিরীক্ষণ করবেন যেভাবে

নিউজ সর্বশেষ২৪ রিপোর্ট ঢাকা: মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) পরীক্ষার ফল প্রকাশিত হয়েছে রোববার। প্রকাশিত ফলে যারা আশানুরূপ ফলাফল পায়নি; তারা চাইলে সোমবার থেকে আগামী ১৩ মে পর্যন্ত পুনঃনিরীক্ষণের জন্য আবেদন করতে পারবেন। পরবর্তী ১৫ দিনের মধ্যে পুনর্নিরীক্ষণের ফল প্রকাশ করা হবে।

শিক্ষাবোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মো. কবির আহমদ জানিয়েছেন, শুধুমাত্র টেলিটক প্রি-পেইড মোবাইল থেকে পুনঃনিরীক্ষণের জন্য আবেদন গ্রহণ করা হবে। মোবাইলের মেসেজ অপশনে গিয়ে RSC স্পেস বোর্ডের প্রথম তিন অক্ষর স্পেস রোল স্পেস বিষয় কোড লিখে ১৬২২২ নম্বরে পাঠাতে হবে। প্রতিপত্রের জন্য ১২৫ টাকা চার্জ ধরা হবে।

উদাহরণ: সিলেট বোর্ডের কোনো পরীক্ষার্থীর রোল নম্বর ১২৩৪৫৬ হলে মেসেজ অপশনে RSC Syl 123456 101(বিষয় কোড) লিখে ১৬২২২ নম্বরে পাঠাতে হবে।

ফিরতি এসএমএসে আবেদন বাবদ কত টাকা কেটে নেওয়া হবে তা জানিয়ে একটি পিন নম্বর দেওয়া হবে। আবেদনে সম্মত থাকলে আবারও ম্যাসেজ অপশনে RSC স্পেস Yes পিন স্পেস কন্ট্রাক্ট নম্বর (যেকোনো অপারেটর) লিখে আবার ১৬২২২ তে পাঠাতে হবে।

একটি এসএমএস দিয়ে একাধিক বিষয়ে আবেদন করা যাবে। সেক্ষেত্রে বিষয় কোডের পর কমা (,) ব্যবহার করতে হবে। যেমন: RSC স্পেস Dha স্পেস Roll স্পেস 101,102 লিখতে হবে।

তবে যেসব বিষয়ের দু’টি পত্র (বাংলা ও ইংরেজি) রয়েছে সেসব বিষয়ে একটি বিষয় কোড বাংলার জন্য (১০১) ও ইংরেজির জন্য (১০৭) এর বিপরীতে দু’টি পত্রের জন্য আবেদন হিসাবে গণ্য হবে এবং আবেদন ফি হবে ২৫০ টাকা।

সংশোধিত ফল যথাসময়ে http://sylhetboard.gov.bd ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হবে।

এ বছর সিলেটে পাসের হার ৭০ দশমিক ৪২ শতাংশ। গতবার পাসের হার ছিল ৮০ দশমিক ২৬ শতাংশ। ফলে এবার কমেছে ৯ দশমিক ৪৮ শতাংশ।

গতবারের তুলনায় এবার ৫৮২ জন শিক্ষার্থী জিপিএ-৫ বেশি পেয়েছে। গতবার জিপিএ-৫ পেয়েছিল ২ হাজার ৬৬৩ জন শিক্ষার্থী। এবার জিপিএ-৫ পেয়েছে ৩ হাজার ১৯১ জন। এ বছর সিলেটে ১ লাখ ৮ হাজার ৯২৮ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেন। এদের মধ্যে পাস করেছে ৭৬ হাজার ৭১০ জন।

সর্বশেষ সংবাদ