Tuesday, January 22, 2019
সর্বশেষ সংবাদ
ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিল হবে না: আইনমন্ত্রী         বিরোধীদের নির্মূলে সরকার মরিয়া: মির্জা আলমগীর         পুনঃনির্বাচনের দাবিতে আন্দোলনে নামছে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট ও বাম জোট         বন্দিদের সঙ্গে সাক্ষাৎ ৩ দিন বন্ধ থাকবে         কোম্পানীগঞ্জে গর্তে পড়ে আবারো এক শ্রমিক নিহত         সিসিকের বকেয়া বিল আদায় অভিযান অব্যাহত, ৭ দিনে ৩৩ লাখ টাকা আদায়         ছড়া-খাল দখলকারীরা যত বড় প্রভাবশালী হোক, তাদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা-সিসিক মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী         নগরীতে ‘বৈকালিক সম্প্রসারিত টিকাদান কর্মসূচির উদ্বোধন’ টিকাদান কর্মসূচিতে বিশ্বে বাংলাদেশ এখন রোল মডেল—সিসিকের প্রধান নির্বাহী         চার দেশে আশ্রয় চাইলেন আলোচিত সৌদি যুবতী কুনুন         ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২: স্থগিত ৩ কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ চলছে        

সিসিকে ২৭টি ওয়ার্ডে চলছে কোরবানি পশুর বর্জ্য অপসারণ ২৪ ঘন্টার মধ্যেই কাজ শেষ হবে প্রত্যাশা নব নির্বাচিত মেয়রের

নিউজ সর্বশেষ২৪ রিপোর্ট: ২৪ ঘন্টার মধ্যেই নগরী থেকে কোরবানি পশুর বর্জ্য অপসারণ করা হবে জানিয়েছেন সিলেট সিটি কর্পোরেশনের নব নির্বাচিত মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী। সেই অনুযায়ী বুধবার বেলা ১২টা থেকে কোরবানির পশুর বর্জ্য অপসারণ শুরু করা হয়েছে।

বুধবার বিকেলে নগরীর তেলিহাওর এলাকায় সাকার মেশিন দিয়ে কোরবানির পশুর বর্জ্য অপসারণের কাজ উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের এসব কথা জানান মেয়র।

তিনি জানান, এরই মধ্যে দ্রুতগতিতে নগরীর ২৭টি ওয়ার্ডে এক যোগে কোরবানির পশুর বর্জ্য অপসারণের কাজ চালাচ্ছে সিলেট সিটি কর্পোরেশন (সিসিক) এর পরিচ্ছন্নতা কর্মীরা।

নগরবাসীর সহযোগিতা চেয়ে আরিফুল হক চৌদুরী বলেন, নগরীর কোথাও কোনো পশুর বর্জ্য পড়ে থাকতে দেখলে আমাকে জানালে দ্রুত অপসারণের ব্যবস্থা করবেন তিনি। এছাড়া সিটি কর্পোরেশনের নির্ধারিত কল সেন্টারে (০১৭১১ ৫৭০৭০৭ ) ফোন দিয়েও জানাতে পারবেন।

কোরবানি পশুর অনেক বর্জ্য ড্রেন ও নর্দমায় ফেলা হয় উল্লেখ করে নবনির্বাচিত মেয়র বলেন, আমাদের পর্যাপ্ত ইকুইপমেন্ট রয়েছে। যেসব স্থানে ড্রেন বা নর্দমায় বর্জ্য ফেলা হয়েছে সেগুলো অত্যাধুনিক ’সাকার মেশিন’ দিয়ে পরিষ্কার করা হচ্ছে।

সিটি কর্পোরেশন সূত্রে জানা যায়, বেলা ১২ টার পরপরই বর্জ্য পরিস্কারে মাঠে নামে সিটি কর্পোরেশনের পরিচ্ছন্নতা কর্মীরা। ড্রেন ও পশু জবাইয়ের স্থানে ছিটানো হয় ব্লিচিং পাউডার ও পানি দিয়ে চলে বর্জ্য অপসারণের কাজ। ময়লা অপসারণে সিলেট নগরের ২৭টি ওয়ার্ডে দেড় সহ¯্রাধিক পরিচ্ছন্নকর্মী কাজ করছেন। এরমধ্যে স্থায়ী ৫৫৬ জন এবং অস্থায়ী ১ হাজার ২শ’ জন। পরিচ্ছন্নতায় ৪০টি বর্জ্যবাহী গাড়ি ও ১০টি পানির গাড়ি ব্যবহার করা হয়েছে।

এসব কাজে সার্বিক তদারকিতে ছিলেন, সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা জাকারিয়া, প্রধান প্রকৌশলী নূর আজিজুর রহমান, কনজারভেন্সি কর্মকর্তা হানিফুর রহমান ও সহকারী প্রকৌশলী জয়দেব বিশ্বাস।

সর্বশেষ সংবাদ