বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৩ শ্রাবণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

বরমচালে দুর্ঘটনাকবলিত উপবন ট্রেনের বগি উদ্ধার: সিলেটের সাথে সারা দেশের ট্রেন যোগাযোগ বন্ধ



মৌলভীবাজার প্রতিনিধি: মৌলভীবাজারের বরমচালে দুর্ঘটনাকবলিত উপবন ট্রেনের বগি উদ্ধারে সাময়িকভাবে সিলেটের সাথে সারা দেশের ট্রেন যোগাযোগ বন্ধ রাখা হয়েছে।

শনিবার (২৯ জুন) সিলেটগামী পারাবত এক্সপ্রেস ৩০ মিনিট দেরিতে শ্রীমঙ্গলে এসে দাঁড়িয়ে আছে। আরেকটি লোকাল ট্রেনও স্টেশনে দাঁড়ানো।

ঢাকাগামী কালনী এক্সপ্রেস সিলেট থেকে ছেড়ে এসে দাঁড়িয়ে আছে বরমচাল ভাঙা ব্রিজের পাশে। আসেনি সিলেট থেকে ঢাকাগামী জয়ন্তিকা এক্সপ্রেসও।

শ্রীমঙ্গলের স্টেশন মাস্টার জাহাঙ্গীর হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বরমচাল স্টেশন মাস্টার শফিকুল ইসলাম জানান, সকাল থেকে সিলেটের সাথে রেল যোগাযোগ বন্ধ রয়েছে। বরমচালে খালে ছিটকে পরা ট্রেনের বগি উদ্ধারের কাজ চলছে। তাই এই লাইনে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন রয়েছে। উদ্ধার কাজ শেষ হলে লাইন খুলে দিলে স্বাভাবিক হবে।

এ দিকে কুলাউড়ার ভারপ্রাপ্ত স্টেশন মাস্টার মুহিব উদ্দিন আহমদ জানান, উদ্ধার কাজ শেষ হতে কত সময় লাগবে বলা যাচ্ছে না। তবে দ্রুত কাজ করা হচ্ছে।

তিনি জানান, খালে রেলের বগি থাকায় তা পানি নিষ্কাশনে ব্যাঘাত ঘটাচ্ছে। যার ফলে ঝুঁকি বাড়ছে সেতুটির। তাই দ্রুত উদ্ধারের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত, রোববার (২৩ জুন) রাত ১১টা ৪৮ মিনিটে সিলেট থেকে ঢাকা যাওয়ার পথে মৌলভীবাজারের কুলাউড়া উপজেলার বরমচাল রেলক্রসিং এলাকার কাছেই সেতু ভেঙে আন্তঃনগর ‘উপবন এক্সপ্রেস’ ট্রেনের কয়েকটি বগি খালে পড়ে যায়। এছাড়া আরও তিনটি বগি স্থলভাগের সীমানায় লাইনচ্যুত হয়ে পড়ে। মোট পাঁচটি বগি ক্ষতিগ্রস্ত হয়। দুর্ঘটনার পর উদ্ধার অভিযানে ফায়ার সার্ভিসের ১১টি ইউনিট কাজ শুরু করে। পুলিশ, বিজিবি ও স্থানীয় লোকজনও উদ্ধার অভিযানে অংশ নেন।

এ ঘটনায় নিহত হন চারজন এবং আহত হন শতাধিক যাত্রী। এ দুর্ঘটনার কারণে ২২ ঘন্টা বন্ধ থাকে সারাদেশের সাথে সিলেটের রেল যোগাযোগ।